আজ ১৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৯শে নভেম্বর, ২০২০ ইং

কেন্দুয়ায় পুকুরের পাড়কাটাকে কেন্দ্র করে একজন খুন:প্রতিপক্ষের বাড়িঘরে হামলা

নেত্রকোণার কেন্দুয়ায় পুকুরের পাড়কাটাকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের হাতে খুন হয়েছেন খাইরুল ইসলাম (৪০) নামে এক দোকানদার। খাইরুল, উপজেলার নওপাড়া ইউনিয়নের কোণাপাড়া গ্রামের মৃত জহুর উদ্দিনের পুত্র। রোববার (৫ আগষ্ট) সরোজমিনে গেলে এলাকাবাসীর মাধ্যমে জানা যায় কোণাপাড়া গ্রামের বাজারের দোকানদার খাইরুল ইসলামের দোকান ঘরের পেছনে তার একটি ছোট পুকুর রয়েছে। সে পুকুরের পাড়কাটা ও মাটি দেয়াকে কেন্দ্র করে পাশের ক্ষেতের মালিক একই গ্রামের পাশের দোকানদার সুলতু মুন্সীর পুত্র ফারুক মিয়ার সঙ্গে শুক্রবার বিকালে খাইরুল ইসলমের ঝগড়া হয়। বিষয়টি মিমাংসা করবেন বলে ইউপি সদস্য হাবুল্লা মিয়া ঝগড়া থামান। পরদিন শনিবার (৪ আগষ্ট) খুব ভোরে খাইরুল ইসলাম তার দোকান খুলতে গেলে ফারুক (৩৫) ও তার ছোট ভাই হাফিজুর (২৬) খাইরুল ইসলামকে ধাওয়া করে পাশের আব্দুল ওয়াদুদ মিয়ার বাড়ির উঠানে উপর্যপুরি কুপিয়ে মারাত্বক আহত করে পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়রা খাইরুলকে উদ্ধার করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান। পরে অবস্থার অবনতি হলে তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শনিবার (৪ আগষ্ট) বিকাল ৫ টার দিকে খাইরুল ইসলামের মৃত্যু হয়। এ সংবাদ এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে উত্তেজিত লোকজন ফারুক,হাফিজুর,জামাল ও বজলু মিয়ার বাড়িঘরে হামলা ও ভাংচুর করে। খবর পেয়ে ওসি ইমারত হোসেন গাজী,ওসি (তদন্ত) স্বপন চন্দ্র সরকারসহ একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে ছুটে যান। নিহতের পরিবারের লোকজন জানান রোববার লাশ বাড়িতে আসবে এবং দাফনের পর মামলা দায়ের করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

     এ বিভাগের আরো সংবাদ
Share via
Copy link
Powered by Social Snap
%d bloggers like this: