আজ ১৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৩রা ডিসেম্বর, ২০২০ ইং

বকবক নয়, আমি ‘ডাইরেক্ট অ্যাকশনে’ বিশ্বাসী – কাদের

‘বকবক’ পছন্দ নয় ওবায়দুল কাদেরের। ‘লম্বা ভাষণেও’ বিশ্বাস নেই তার। বলেছেন, তার পছন্দ ‘ডাইরেক্ট অ্যাকশন’।

সোমবার ঢাকা ক্লাবে অনুষ্ঠিত ‘জ্যাম’ সিনেমার শুভ মহরত অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখছিলেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক। এ সময় তিনি এসব কথা বলেন।

কাদের বলেন, ‘আমি বেশি বকবক করা এবং লম্বা ভাষণে বিশ্বাস করি কম, আমি সবসময় ডাইরেক্ট অ্যাকশনে বিশ্বাসী।’

দেশের উন্নয়ন নিয়ে কথা বলতে গিয়ে কাদের বলেন, ‘পদ্মাসেতু আমাদের একটা মেগা প্রজেক্ট। নিন্দুকেরা বলেছিল, আমরা নাকি মাটিতে বসে চাঁদ ছোঁয়ার স্বপ্ন দেখছি। পদ্মা সেতু এখন দৃশ্যমান, কিন্তু নিন্দুকেরা ঠিকই অদৃশ্য হয়ে গিয়েছে।’

‘বর্তমানে বাংলাদেশে যোগাযোগ ব্যাবস্থার একটা বৈপ্লবিক উন্নয়ন সাধিত হচ্ছে। আগামী দুই-চার বছরের মধ্যে বাংলাদেশে সড়ক ব্যবস্থায় আর কোন অকল্যাণকর কিছু থাকবে না।’

‘সড়কে কিছু কিছু ভুলের কারণে আমাদের দুর্ঘটনা হয়। এগুলো আমাদের সচেতনতার অভাবে হয়, কিছু মানুষ ঢালাওভাবে সরকারকে দোষ দিয়ে দেয়। এটা তাদের অভ্যাসে পরিণত হয়েছে।’

‘যানজট নিয়ন্ত্রণ করতে হলে আমাদের আগে মানসিকতার পরিবর্তন করতে হবে। ঠিকঠাকভাবে ফুটওভারব্রিজ ব্যবহার করতে হবে।’

চলচ্চিত্র নিয়েও কথা বলেন আওয়ামী লীগ নেতা। বলেন, ‘মানুষের সচেতনতা বৃদ্ধির একটি অন্যতম বড় বিজ্ঞাপন হচ্ছে সিনেমা। ১৯৭২ সালে আমাদের মুক্তিযুদ্ধে জয়লাভে সিনেমা একটি বড় ভুমিকা রেখেছিল।’

‘জ্যাম’ সিনেমাটি ট্রাফিক আইন নিয়ে সচেতনতা তৈরি করতে ভূমিকা রাখবে বলেও আশাবাদী ওবায়দুল কাদের।

প্রয়াত নায়ক মান্নার প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান কৃতাঞ্জলী এই ‘জ্যাম’ সিনেমা তৈরি করবে। মান্নার অবর্তমানে প্রতিষ্ঠানটির হাল ধরেছেন তার স্ত্রী শেলী মান্না। কাহিনি লিখেছেন প্রয়াত চলচ্চিত্র সাংবাদিক আহমদ জামান চৌধুরী। পরিচালনা করবেন নঈম ইমতিয়াজ নেয়ামুল।

চলচ্চিত্রটিতে অভিনয় করবেন ভারতীয় জনপ্রিয় অভিনেত্রী ঋতুপর্ণা সেন গুপ্তা, বাংলাদেশের প্রখ্যাত অভিনেতা এ টি এম শামসুজ্জামান, অভিনেত্রী পূর্ণিমা, ফেরদৌস, আহম্মদ শরীফ।

সড়ক মন্ত্রী বলেন, ‘আমরা সবসময় জীবন ঘনিষ্ঠ ছবি চাই। জীবন থেকে বিচ্যুত ছবি আমরা চাই না। জ্যাম সিনেমাটি সেখানে অনেক বড় ভুমিকা রাখবে বলে আমি মনে করি।’